Blog, Health&Beauty, লাইফস্টাইল

শসার রসই ত্বকের বন্ধু….

বাড়িতেই নিতে পারেন নিয়মিত যত্ন

গরম, রোদ, ঘাম—সবকিছুই তৈলাক্ত ত্বকের ওপর বিরূপ প্রভাব ফেলে। রয়েছে এই সমস্যার সমাধানও।

নিয়মিত যত্নে তৈলাক্ত ত্বকও সুন্দর থাকতে পারে এই সময়। যত্নের মাধ্যমেই দূর করা সম্ভব ত্বকসংক্রান্ত অস্বস্তি। তবে মাত্রাতিরিক্ত ব্রণ হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়াই শ্রেয়। সমস্যা যাঁদের এখনো গুরুতর আকার ধারণ করেনি, তাঁরা অবশ্য সহজ কিছু উপায় অবলম্বন করে বাড়িতেই যত্ন নিতে পারেন। ঈদের আগে এই সময়টিতে নিয়মিত যত্ন নিলে উৎসবের দিনটিতে ত্বক থাকবে ভালো। তৈলাক্ত ত্বকের ঘরোয়া যত্নের এমন কিছু উপায় জানালেন শারমিন কচি।

শসার রস তৈলাক্ত ভাব দূর করবে

• শসার রস তৈলাক্ত ভাব দূর করতে খুবই কার্যকর। প্রতিদিন বাইরে থেকে এসে শসার রস দিয়ে মুখ পরিষ্কার করতে পারেন।

• শসার রসের সঙ্গে প্রয়োজনমতো

• শসার রস তৈলাক্ত ভাব দূর করতে খুবই কার্যকর। প্রতিদিন বাইরে থেকে এসে শসার রস দিয়ে মুখ পরিষ্কার করতে পারেন।

• শসার রসের সঙ্গে প্রয়োজনমতো চালের গুঁড়া মিশিয়ে স্ক্রাব হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন। সপ্তাহে দুই দিন এই মিশ্রণ ব্যবহারে ত্বক হবে গভীর থেকে পরিষ্কার। ব্ল্যাকহেডস ও হোয়াইটহেডস থেকেও মিলবে মুক্তি। তবে ব্রণ থাকলে সেই সময় স্ক্রাব ব্যবহার করা যাবে না। মধুতে অ্যালার্জি না থাকলে এই মিশ্রণে সামান্য মধুও মিশিয়ে নিতে পারেন।

সপ্তাহে এক দিন যেকোনো একটি ফেসপ্যাক ব্যবহার করতে পারেন। তবে ত্বক অতিরিক্ত তৈলাক্ত হলে সপ্তাহে দুই দিনও ফেসপ্যাক ব্যবহার করা যেতে পারে।

• সমপরিমাণ গোলাপজল ও লেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে মুখে লাগান। আধা ঘণ্টা পর ধীরে ধীরে, আলতোভাবে তুলা দিয়ে মুখ পরিষ্কার করুন। ব্রণ এবং ফুসকুড়ির দাগ চলে যাবে।

• এক চা-চামচ বেসন, সামান্য টক দই ও খুব অল্প পরিমাণ হলুদের গুঁড়া একসঙ্গে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন। মুখে প্যাক লাগানোর আধা ঘণ্টা পর মুখ ধুয়ে ফেলতে হবে। নিয়মিত ব্যবহারে ত্বক হয়ে উঠবে সুন্দর ও লাবণ্যময়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *